দুবাইয়ে অমির কাছে ১৭ রাত ছিলেন পরীমনি, ভিডিও প্রকাশ

ইন্ডাস্ট্রিতে আসার ছয় বছরের মধ্যে ঢাকাই চলচ্চিত্রের শীর্ষ নায়িকা বনে যান পরীমনি। এ যেন এলাম, দেখলাম, জয় করলাম। এরপর নানা মানুষের সঙ্গে তার সখ্যতা গড়ে ওঠে। তেমনই একজন তুহিন সিদ্দিকী অমি। তার দুবাইয়ের ফ্ল্যাটে ১৭ রাত ছিলেন পরীমনি।

পরীমনি নামের আড়ালে ঢাকা পড়া শামসুন্নাহার স্মৃতির চলচ্চিত্রে আগ্রহ তেমন ছিল না। মফস্বল থেকে ঢাকায় এসে টুকটাক মডেলিং ও টিভি নাটকই করছিলেন।

চলচ্চিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব পেয়ে শুরুতে রাজি না হলেও পরে নানার উৎসাহে নাম লেখান। প্রথম সিনেমা ‘ভালোবাসা সীমাহীন’ মুক্তির আগেই অন্তত ২০টি চলচ্চিত্রে চুক্তিবদ্ধ হয়ে রাতারাতি তারকা বনে যান।

দুবাইয়ের সবচেয়ে দামি জায়গা ব্লু ওয়াটার আইল্যান্ডে প্রায় ১১ কোটি টাকা দিয়ে ফ্ল্যাট কেনেন অমি। এপ্রিলে দুবাই গিয়ে অমির ফ্ল্যাটে ১৭ দিন-রাত ছিলেন এই চিত্রনায়িকা। তার দুবাই যাওয়ার বিমান টিকিট এবং ঘুরাফেরার সব খরচ বহন করেন অমি।

অমির সঙ্গে ঘুরাঘুরি ও সময় কাটানোর পাশাপাশি অনেকের সঙ্গে পরিচয়ের উদ্দেশ্যে দুবাই যান পরীমনি। দুবাইয়ে ১৭ দিন থাকার জন্যে পরীমনিকে অমি দিয়েছিলেন নগদ ১৫ লাখ টাকা। শুধু অমি নয়, বিভিন্ন ব্যবসায়ীদের সঙ্গে দেশে-বিদেশে ঘুরতেন। পরবর্তীতে টাকা নিয়ে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করতেন।

অমির সঙ্গে পরীমনির সখ্যতা গাঢ় হয় দুবাইয়ে। দেশে ফিরে অমি পরীমনিকে সাভারের বোট ক্লাবে নিয়ে গিয়েছিলেন। পরবর্তীতে পরীমনির শ্লীলতাহানির চেষ্টার মামলার আসামিও হন অমি। তিনি বর্তমানে কারাগারে আছেন।

সূত্র জানায়, অমি মানবপাচার ব্যবসা করেন। বাংলাদেশ থেকে উঠতি বয়সী মডেলদের পাচার করে দুবাই নিয়ে তার ফ্ল্যাটেই রাখেন। পরীমনির দুবাই ভ্রমণ ও ছবি দেখে অনেক উঠতি মডেল এভাবে দুবাই যেতে আগ্রহ দেখাবে, এ কারণেই এই চিত্রনায়িকাকে নিয়ে যাওয়া হয়।গত ১৩ জুন রাতে ফেসবুক পোস্টে পরীনি অভিযোগ করেন, ৯ জুন উত্তরার বোট ক্লাবে তাকে ধর্ষণ ও হত্যার চেষ্টা চালান ব্যবসায়ী নাসির ইউ মাহমুদ ও তার সহযোগীরা। এ ঘটনায় তিনি সাভার থানায় ৬ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন। এই মামলায় ‘বন্ধু’ অমির নামও আসামির তালিকায় দেন পরীমণি।বুধবার বিকেলে পরীমনির বনানীর বাসায় র‍্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে অভিযানে যান র‍্যাবের গোয়েন্দা দলের সদস্যরা। প্রায় চার ঘণ্টার অভিযান শেষে রাত ৮টার দিকে তাকে আটক করে র‍্যাব সদরদফতরে নিয়ে যাওয়া হয়। তার বাসা থেকে বিপুল পরিমাণ মাদক জব্দ করার কথা জানায় র‍্যাব।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *