আমাদেরকে প্রভুর মতো আচরণ করলে চলবে না: সিইসি


বাংলাদেশ: প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, ‘সবদিক থেকে আমাদের নৈতিক অধপতন হয়েছে।

আমাদের সব কাজে তদবির করতে হয়। যখনই আমরা পাবলিক সার্ভেন্ট হিসেবে চাকরি পাই জনগণকে নিজেদের অধীনত হিসেবে চিহ্নিত করি।

কিন্তু আমাদেরকে প্রভুর মতো আচরণ করলে চলবে না। আমাদেরকে অন্তর দিয়ে জনগণের সেবক-ভৃত্য হিসেবে নিজেদেরকে মেনে নিতে হবে। ’

আজ মঙ্গলবার (২৯ মার্চ) আগারগাঁওয়ের নির্বাচনী প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটে আয়োজিত এক কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেন, পরিচয়পত্র দৈনন্দিন কার্যক্রম সহজ করে দিয়েছে। তবে ভুল সংশোধন নিয়ে অনেকেই আসছেন। এটা গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

সমস্যাগুলো আইডেন্টিফাই করতে হবে। অসংখ্য অভিযোগ আছে। প্রথম দিকে আমার ছবিও বিকৃত ওঠেছিল। তিনি বলেন, নৈতিক অধঃপতন হয়েছে। সহজে আমরা সার্ভিস পাই না।

দালালরা ঢুকতেই দেয় না। সেবা সঠিকভাবে দিতে পারলে মানুষ উপকৃত হবে। তিনি আরো বলেন, কর্মকর্তারা দায়িত্বশীল হয়ে কাজ না করলে দায় ইসির ওপরে পড়বে। কিছু কিছু মানুষের জন্য সুনাম বিঘ্নিত হচ্ছে। তাই সবাইকে সতর্ক থেকে কাজ করতে হবে

‘জাতীয় পরিচয়পত্রের বিভিন্ন সমস্যা নিরসনের উপায় নির্ধারণ’ শীর্ষক কর্মশালাটি আয়োজন করে জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন (এনআইডি) অনুবিভাগ। এতে চার নির্বাচন কমিশনার, ইসি সচিব, অতিরিক্ত সচিব ও এনআইডি মহাপরিচালকসহ বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published.