আমি কি তোকে আমাদের ছেলেদের নকল ধরবার জন্য শিক্ষক হিসেবে বসিয়েছি: ছাত্রলীগ নেতা

আমি কি তোকে আমাদের ছেলেদের নকল ধরবার জন্য শিক্ষক হিসেবে বসিয়েছি: ছাত্রলীগ নেতা

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) বাংলা বিভাগে পরীক্ষা চলাকালে নকল করার সময় এক শিক্ষার্থীকে হাতেনাতে ধরে শিক্ষক। নকল ধরায় ওই শিক্ষককে

মারধরের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে রাজু মুন্সি নামের এক ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এই ঘটনায় ব্যবস্থা নিতে প্রক্টর বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ওই শিক্ষক।

সোমবার (৪ এপ্রিল) দুপুরে মুঠোফোনে ও সরাসরি এই হুমকি দেওয়া হয় বলে জানান ওই শিক্ষক। ভুক্তভোগী শিক্ষকের নাম নাম তানভীর হাসান মিথুন। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের

নাট্যকলা বিভাগের প্রভাষক। অন্যদিকে অভিযুক্ত রাজু মুন্সি শাখা ছাত্রলীগের সিক্সটি নাইন গ্রুপের নেতা। ভুক্তভোগী শিক্ষক তানভীর চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, আমি কিছুদিন আগে

বাংলা বিভাগে অতিথি শিক্ষক হিসেবে পরীক্ষার হলে দায়িত্ব পালন করি। এ সময় এনজয় বড়ুয়া নামের এক শিক্ষার্থীকে নকল করার সময় মোবাইল ফোনসহ ধরে ফেলি।

পরে তার কাছে থাকা মোবাইল ফোনটি জব্দ করে বাংলা বিভাগের পরীক্ষা কমিটির হাতে তুলে দিই। কিন্তু আজকে হঠাৎ ছাত্রলীগের নেতা রাজু মুন্সি আমাকে কল দিয়ে ওই ছেলের (এনজয় বড়ুয়া) বরাত দিয়ে হুমকি দেয়। রাজু মুন্সি বলে, সেই নাকি আমাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক বানিয়েছে। সে আরও বলে, ‘আমি কী তোকে আমাদের ছেলে-পেলেদের নকল ধরার জন্য শিক্ষক বানিয়েছি?’

ভুক্তভোগী ওই শিক্ষক আরও বলেন, ফোনকলে রাজু মুন্সি আমাকে মারার সুপারি পেয়েছে বলে হুমকি দেয়। সে বলে, আমি ক্যাম্পাসে আসলে নাকি আমাকে মারবে। আমার ডিপার্টমেন্টেও সে ভাঙচুর করবে বলে হুমকি দেয়। এ সময় আমি তার সঙ্গে সরাসরি দেখা করতে চাইলে আমাকে প্রশাসনিক ভবনের সামনে আসতে বলে।

আমি ওখানে গেলে রাজু মুন্সি, এনজয় বড়ুয়াসহ আরও একজন এসে একই রকম হুমকি-ধমকি দিতে থাকে। আমি দ্রুত ওই স্থান ত্যাগ করি। পরে প্রক্টর বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছি। শিক্ষক সমিতিকেও জানাবো। আমি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। এ বিষয়ে জানতে ছাত্রলীগ নেতা রাজু মুন্সিকে একাধিকবার কল দিলে তিনি রিসিভ করেননি। জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, আমরা প্রশাসনিক জায়গা থেকে কঠোরভাবে বিষয়টি দেখবো।


Leave a Reply

Your email address will not be published.