বিএনপি নেতার বিরুদ্ধে দুর্নীতি মামলা চলতে বাধা নেই

বিএনপি নেতার বিরুদ্ধে দুর্নীতি মামলা চলতে বাধা নেই

রাজনীতি: দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা মামলায় পুনর্তদন্ত ও পুনরায় সাক্ষীর জেরা চেয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের করা

আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। এর ফলে এ মামলায় পুনরায় সাক্ষীকে জেরার সুযোগ রইলো না এবং নিম্ন আদালতে মামলটি চলতে বাধা রইলো না বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) মোশাররফের আবেদন নিষ্পত্তি করে প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ এ আদেশ দেন। আদালতে দুদকের পক্ষে

শুনানিতে ছিলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী মো. খুরশীদ আলম খান। এর আগে ২০০৮ সালের ১০ জানুয়ারি রমনা থানায় ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের বিরুদ্ধে জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন এবং

তার তথ্য গোপনের অভিযোগে মামলাটি করে দুদক। ওই বছরের ১৭ সেপ্টেম্বর এ মামলায় অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়। দুদকের দায়ের করা এ মামলায় ২০০১ থেকে ২০০৬ সালে

স্বাস্থ্যমন্ত্রী থাকাকালে মোশাররফের বিরুদ্ধে ৯ কোটি ৫৩ লাখ ৯৫ হাজার ৩৮৯ টাকা বিদেশে পাচারের অভিযোগ আনা হয়। এই মামলায় মোট সাক্ষী ৮ জন।

মামলার এজাহারে বলা হয়, খন্দকার মোশাররফ হোসেন মন্ত্রী থাকাকালে ক্ষমতার অপব্যবহার ও দুর্নীতির মাধ্যমে অর্জিত ৮ লাখ ৪ হাজার ১৪২ পাউন্ড যুক্তরাজ্যের লয়েড টিএসবি অফসোর প্রাইভেট ব্যাংকে তার ও স্ত্রী বিলকিস আক্তারের যৌথ অ্যাকাউন্টে (হিসাব নম্বর- ১০৮৪৯২) জমা করেন। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ ৯ কোটি ৫৩ লাখ ৯৫ হাজার ৩৮১ টাকা।


Leave a Reply

Your email address will not be published.