প্রতিবন্ধীর সাথে অ’বৈধ সম্পর্ক, ধরা খেয়ে করুণ পরিণতি আ’লীগ সভাপতির


অপরাধ: ফেনী সদর উপজেলার ধলিয়া ইউনিয়নের অলিপুরে প্রতিবন্ধী ও স্বামী প’রিত্যক্তা এক নারীর সাথে অ’বৈধ সম্পর্ক গড়ে তুলেছেন স্থানীয় ৫ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী

লীগের সভাপতি মাহবুবুল হক। পরে গ্রাম্য সালিশের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ওই নারীকে বিয়ে করতে বাধ্য হন মাহবুব। ঘটনা জানাজানির পর তাকে দলের দায়িত্ব থেকে বহিষ্কার করে আওয়ামী লীগ।

দলীয় ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বিয়ের প্র’লোভনে অলিপুর এলাকার হক সাহেবের পুরাতন বাড়ির বাসিন্দা স্বামী পরিত্যক্তা প্রতিবন্ধী নারীর (৪৫) সাথে শা’রীরিক সম্পর্কে জড়ান একই বাড়ির ষাটোর্ধ্ব আওয়ামী লীগ নেতা মাহবুবুল হক।

তাদের অ’বৈধ সম্পর্ক দীর্ঘ দিন ধরে চললেও গত ক’দিন ধরে এলাকায় জানাজানি হয়। তারা জানায়, বিষয়টি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার আহম্মেদ মুন্সির কানে পৌঁছালে তিনি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শুসেন চন্দ্র শীলকে অবহিত করেন। সোমবার দুপুরে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিগণ বৈঠকে বসেন। স্থানীয় সমাজ কমিটির সাধারণ সম্পাদক আবদুল মতিন জানান,

অ’বৈধ সম্পর্কের সত্যতা মেলায় সালিশি বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী সোমবার বিকেলে দেড় লাখ টাকা দেনমোহরে তাদের বিয়ে হয়েছে। উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শুসেন চন্দ্র শীল জানান, দলীয় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মাহবুবুল হককে দলীয় পদ থেকে ব’হিষ্কার করা হয়েছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published.