সাক্কুর প্রচারে নতুন চমক

সাক্কুর প্রচারে নতুন চমক

রাজনীতি: কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচনে প্রচারণায় একের পর এক চমক দেখাচ্ছেন মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা। এ প্রতিযোগিতায় স্বতন্ত্র

মেয়র প্রার্থী মনিরুল হক সাক্কুর নতুন চমক ট্রান্সজেন্ডারদের (তৃতীয় লিঙ্গ) ব্যবহার। তাঁরা নগরীতে নেচে-গেয়ে প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন। ভোটাররাও বিষয়টি উপভোগ করছেন।

বৃহস্পতিবারও সারাদিন নগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ডে সাক্কুর প্রচারপত্র নিয়ে ছুটে গেছেন তৃতীয় লিঙ্গের সদস্যরা। নেচে-গেয়ে উল্লাস করে ভোট চান তাঁরা। প্রচারপত্র বিলির পাশাপাশি তাঁরা বাদ্যযন্ত্র বাজিয়ে নিজেরাই গান পরিবেশন করছেন।

নগরীর প্রাণকেন্দ্র কান্দিরপাড় থেকে শুরু করে অলিগলি চষে বেড়াচ্ছেন তাঁরা। নাগি ও ববিতা নামে দু’জন ট্রান্সজেন্ডার বলেন, নগরীতে তাঁদের প্রায় ২০০ সদস্য প্রচার চালাবেন। তাঁরা মানুষের কাছে হাত পেতে খান। ‘সাক্কু ভাই’ তাঁদের ভালোবাসেন।

তাঁরা বলেছেন, এবার নির্বাচিত হলে তাঁদের চাকরি দেবেন। করোনার সময় তিনি খাবার না দিলে না খেয়ে মরতে হতো। সাক্কু বলেন, ‘তৃতীয় লিঙ্গের এ মানুষগুলো আমাকে ভালোবাসে। আমিও তাঁদের আশ্বস্ত করেছি, তাঁদের যেন আর কখনও হাত

পেতে খেতে না হয়। তাঁদের চাকরির ব্যবস্থা করব।’ তিনি বলেন, করোনাকালে তাঁদের সংকট দেখা দিলে নিয়মিত খাদ্য সহায়তা দেওয়া হয়েছে। তবে তাঁদের প্রচারে কেউ যেন ভোগান্তিতে না পড়েন, তা নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published.