সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ড, ১৫ ঘণ্টা পর যে বার্তা পাঠাল মালিকপক্ষ

সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ড, ১৫ ঘণ্টা পর যে বার্তা পাঠাল মালিকপক্ষ

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে বিএম কনটেইনারের ডিপোতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে এখন পর্যন্ত ৪১ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন অন্তত ৪৫০ জন। জানা গেছে, অগ্নিকাণ্ডের পর থেকে মালিকপক্ষের কোনো হদিস পাওয়া যাচ্ছিল না।

ফায়ার সার্ভিসের পক্ষ থেকেও বারবার বিষয়টি বলা হচ্ছিল। অবশেষে সংবাদ মাধ্যমে বার্তা পাঠিয়েছেন মালিকপক্ষ। রোববার (৫ জুন) বেলা সাড়ে ১২টার পর বিএম কনটেইনার ডিপোর মালিকপক্ষের প্রতিনিধি

কোম্পানির নির্বাহী পরিচালক শহীদ উদ্দিন সংবাদ মাধ্যমে পাঠানো বার্তায় বলেন, ভয়াবহ আগ্নিকাণ্ড ও হতাহতের জন্য দুঃখ প্রকাশ করছি। নিহতদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি। আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করছি।

তিনি বলেন, নিহত পরিবারকে সর্বোচ্চ এবং আহতদের সম্পূর্ণ চিকিৎসা ব্যয় গ্রহণ করা হবে। আমরা নিহত ও আহতদের পরিবারের সদস্যদের দায়িত্ব গ্রহণের ঘোষণা দিচ্ছি। শহীদ উদ্দিন বলেন, আমাদের কর্তৃপক্ষ ইতোমধ্যে পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠনসহ সরকারের গঠিত তদন্ত কমিটিকে সর্বোচ্চ সহযোগিতা করার ঘোষণা দিয়েছে।

তবে এটি দুর্ঘটনা নাকি নাশকতা বা কোনো প্রতিপক্ষ দ্বারা ইচ্ছাকৃত অনিষ্টসাধন (স্যাবোটাজ) ঘটিয়েছে কি না, তা খতিয়ে দেখার জন্য অনুরোধ জানান তিনি। বিএম কনটেইনার ডিপো স্মার্ট গ্রুপের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান বলে জানা গেছে। এদিকে ফায়ার সার্ভিস জানিয়েছে, শনিবার (৪ জুন) রাত ৯টার দিকে সীতাকুণ্ডের সোনাইছড়ি ইউনিয়নে বিএম কনটেইনার ডিপোর লোডিং পয়েন্টের ভেতরে আগুন লাগে। রাত পৌনে ১১টার দিকে এক কনটেইনার থেকে অন্য কনটেইনারে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। একটি কনটেইনারে রাসায়নিক থাকায় বিকট শব্দে বিস্ফোরণ ঘটে।


Leave a Reply

Your email address will not be published.