যে কারণে স্ত্রী-ছেলেসহ বিমানবন্দরে হেনস্তার শিকার মির্জা আব্বাস, জানা গেল আসল তথ্য

যে কারণে স্ত্রী-ছেলেসহ বিমানবন্দরে হেনস্তার শিকার মির্জা আব্বাস, জানা গেল আসল তথ্য

এর আগে শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে গত ২৪ মে সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে দেশত্যাগ করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস।

দীর্ঘ ১৭ দিন সেখানে চিকিৎসাধীন থাকার পর অবশেষে সুস্থ হয়ে গতকাল শুক্রবার (১০ জুন) সন্ধ্যা ৬টা ১০ মিনিটে দেশে ফেরেন তিনি। তবে এদিন দেশের ফেরার সময়ে মির্জা আব্বাসকে বিমানবন্দরে ‘হেনস্তার শিকার’

হতে হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন স্ত্রী আফরোজা আব্বাস। তিনি জানান, মির্জা আব্বাসকে পাসপোর্টসহ হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আটক করা হয়। তিনি আরও বলেন, প্রায় দুই ঘণ্টা আটকে রাখার পর তাদের বের হতে দেওয়া হয়।

আফরোজা আব্বাস গণমাধ্যমকে জানান, তার পরিবারের সদস্যরা সন্ধ্যা ৭টা ১০ মিনিটে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটে সিঙ্গাপুর থেকে ঢাকায় আসেন। এরপর অভিবাসন কর্তৃপক্ষ তাদের পরিবারের চার সদস্যকে তাদের পাসপোর্টসহ আটক করে।

প্রায় দুই ঘণ্টা পর তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়। মির্জা আব্বাসের বড় ছেলে মির্জা ইয়াসির আব্বাস ও ছোট ছেলে মির্জা আজানও এ সময় উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, এর আগে বেশ কিছুদিন পেটের সমস্যায় ভোগার পর

গত ১৭ মে রাজধানী ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তি হন মির্জা আব্বাস। তবে সেখানে সপ্তাহ খানেক চিকিৎসা নিয়েও শারীরিক অবস্থার কোনো উন্নতি না হওয়ায় শেষমেষ সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে রওণা হন তিনি।


Leave a Reply

Your email address will not be published.