স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে স্ত্রী বললো, ভুল করে ফেলছি মাফ করে দেন

স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে স্ত্রী বললো, ভুল করে ফেলছি মাফ করে দেন

ফরিদপুরের মধুখালীতে স্বামী রাসেল বিশ্বাসের (৫৫) পুরুষাঙ্গ কেটেছে তার স্ত্রী। জিজ্ঞাসাবাদে স্ত্রী টুটু খাতুন (৬০) বলেছেন,

‘ভুল করে ফেলছি মাফ করে দেন।’ আহত স্বামীকে ফরিদপুরের বিএসএমএমসি হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে

মধুখালী পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম গাড়াখোলা মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে। রাসেলের ছোট ভাই তোফাজ্জেল বিশ্বাস তোতা বলেন, বৃহস্পতিবার রাত ১০টার পর

তার ভাইয়ের ঘর থেকে গোঙানোর আওয়াজ পেয়ে দেখতে যান। তখন তার ভাইয়ের পুরুষাঙ্গ কেটে রক্ত বের হচ্ছে দেখতে পান। এরপর তিনি স্থানীয় মেম্বারকে খবর দেন।

মধুখালী পৌরসভার ৪ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলার আনিসুর রহমান লিটন জানান, খবর পেয়ে ২টার দিকে তিনি ঘটনাস্থলে যান এবং আহত রাসেলকে হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করেন।

তিনি জানান, জিজ্ঞাসাবাদে টুটু খাতুন স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে ফেলার কথা স্বীকার করে বলেন, ভুল করে ফেলছি মাফ করে দেন। পরে তাকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, রাসেলের পুরুষাঙ্গের দুই-তৃতিয়াংশ কেটে গেছে। তার অবস্থা গুরুতর। মধুখালী থানার এসআই অজয় বালা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, গভীর রাতে খবর পেয়ে পুলিশ রাসেলকে হাসপাতালে পাঠায়। তার স্ত্রী টুটু খাতুনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

স্থানীয়রা জানান, গাড়াখোলার মৃত আবদুস সাত্তার বিশ্বাসের ছেলে ইলেক্ট্রিশিয়ান রাসেল বিশ্বাসের তৃতীয় স্ত্রী টুটু খাতুন। অভাবের কারণে রাসেলের আগের দুই স্ত্রী তাকে ত্যাগ করে। এরপর তিনি বয়সে বড় কামালদিয়া গ্রামের টুটু খাতুনকে বিয়ে করেন। তারা নিঃসন্তান দম্পতি ছিলেন। এ ঘটনায় রিপোর্টটি লেখা পর্যন্ত কেউ থানায় মামলা করেনি বলেও জানান তিনি।


Leave a Reply

Your email address will not be published.