আ.লীগ নেতার দু’র্নীতি নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা কারাগারে

আ.লীগ নেতার দু’র্নীতি নিয়ে ফেসবুকে পোস্ট, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা কারাগারে

জয়পুরহাটে জেলা আওয়ামী লীগের শীর্ষ স্থানীয় নেতাদের সম্পর্কে দুর্নীতি ও ন্যায় -অন্যায় নিয়ে লেখা সামাজিক যোগযোগ মাধ্যম নিজ ফেসবুক আইডিতে ছড়িয়ে

দেওয়ার অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় জেলা ছাত্রলীগের সাবেক নেতা খাজা আল আমীন সোহাগকে (৪২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার সন্ধ্যায় গ্রেফতারের পর রাতেই তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। জয়পুরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর জাহান বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুরে জয়পুরহাট অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল

ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে পৌর আওলীগের সভাপতি ও পৌরসভার প্যানেল মেয়র ইকবাল হোসেন সাবু বাদী হয়ে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিভিন্ন ধারায় একটি মামলা করেন। মামলার একমাত্র অভিযুক্ত গ্রেফতারকৃত খাজা আল আমীন সোহাগ (৪২)

হচ্ছেন জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলির অন্যতম সদস্য অধ্যক্ষ খাজা সামছুল আলমের ছেলে ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক উপ-সমাজসেবা বিষয়ক সম্পাদক বলে জানা গেছে। সে শহরের জানিয়ার বাগান এলাকায় বসবাস করেন।

মামলা সূত্রে জানা যায়, চলতি বছরের ১৩ ফেব্রুয়ারি খাজা আল-আমীন সোহাগ তার নিজ ফেসবুক আইডি থেকে জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের প্রশাসক আরিফুর রহমান রকেট, জেলা আ’লীগের শীর্ষ স্থানীয় নেতাদের সম্পর্কে দুর্নীতি ও নানা অনিয়ম তুলে ধরে বিভিন্ন লেখা পোষ্ট করেন।

এছাড়াও তিনি জয়পুরহাট পৌর আওয়ামীলীগের সম্মেলনে অর্থের বিনিময়ে সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকের পদ বিক্রি করা হয়েছে মর্মে গত ১ ফেব্রুয়ারি ফেসবুকে আরেকটি পোস্ট করেন। এভাবে অপপ্রচার ও মানহানীকর ফেসবুকে পোস্ট করায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করেন ইশবাল হোসেন সাবু।

জয়পুরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর জাহান জানান, জয়পুরহাট অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্টেট আদালতের বিচারক আব্দুল্লাহ আল মামুন, মামলাটি আমলে নিয়ে তদন্ত করে এজাহার হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করতে জয়পুরহাট থানা পুলিশকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নিদের্শ প্রদান করে। তদন্ত সাপেক্ষে সদর থানা ও ডিবি পুলিশের যৌথ অভিযানে শুক্রবার সন্ধ্যায় শহরের পুরাতন বাজার এলাকা থেকে আসামী খাজা আল আমীন সোহাগকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান ওসি।


Leave a Reply

Your email address will not be published.