স্বামীর বিচ্ছেদ হয়েছে কিন্তু মেয়ের বাবার নয়: শ্রীলেখা

স্বামীর বিচ্ছেদ হয়েছে কিন্তু মেয়ের বাবার নয়: শ্রীলেখা

১৯ জুন, রবিবার ছিল বাবা দিবস। এই দিনটা কি শুধুই সাধারণ বাবাদের? নাকি সেই বাবাদেরও, যারা বিবাহবিচ্ছেদের পরেও আগের মতোই আগলে রাখেন সন্তানকে?

টলিপাড়ার একলা মা শ্রীলেখা মিত্র শোনালেন তেমনই এক বাবার গল্প। প্রাক্তন স্বামী শিলাদিত্যের সঙ্গে হাত মিলিয়ে মেয়েকে বড় করার কাহিনি। প্রায় ১০ বছর হল স্বামী শিলাদিত্যের সঙ্গে আইনি বিচ্ছেদ হয়েছে।

মেয়ের দায়িত্ব কি শ্রীলেখার একার কাঁধেই? গণমাধ্যমের প্রশ্নে অভিনেত্রীর স্পষ্ট উত্তর,“না, একদমই নয়। শিলাদিত্য হল সব থেকে ভাল বাবা। আজকের দিনটা শুধুই শিলাদিত্যের। আমি কোনও দিনই একা মেয়েকে বড় করিনি।

২০১৩ সালে আমাদের আইনি বিচ্ছেদ হয়। তার আগের প্রায় দেড় বছর আলাদা থাকতাম। কোনও দিন মেয়েকে নিয়ে টানাটানি করিনি। সন্তানকে বড় করছি আমরা একসঙ্গেই।” শ্রীলেখা জানান, ছোট থেকেই খুব বুঝদার তার মেয়ে। বাবা-মায়ের আলাদা থাকা নিয়ে কোনও দিন

কান্নাকাটিও করেনি। বাবা-মায়ের আলাদা থাকাটাকে নিজের মতো করেই মানতে শিখেছে মেয়ে। তার কথায়, “কোনও দিন ওকে দেখিনি মনখারাপ করেছে, বা বলেছে কেন মা-বাবা একসঙ্গে থাকে না। নিজের মনে মনে যদি কষ্ট পেয়েও থাকে, নিজের মতো বুঝিয়েছে নিজেকে।”


Leave a Reply

Your email address will not be published.